খেলাধুলা

tal-feature-image

সেরার সেরা দাবাড়ুগণ ৩: মিখাইল তাল, দ্য ম্যাজিশিয়ান ফ্রম রিগা, পর্ব ৩

অসাধারণ খেলার ধরনের কারণে মিখাইল নেখমেভিচ দ্য এইটথ, তাল বিভিন্ন উপাধিতে ভূষিত হয়েছিলেন। যার মধ্যে দ্য ম্যাজিশিয়ান ফ্রম রিগা, দ্য পাইরেট অফ লাতভিয়া, দ্য এলিয়েন ইত্যাদি উল্লেখযোগ্য। বন্ধুরা ডাকত মিশা বলে। তাল আসলে দাবার এক বিপ্লবের নাম, প্রথাগত শিকল ভেঙে নিয়ম-কানুনের ঊর্ধে ওঠার নাম। তালের মৃত্যুর পর মার্কিন গ্র্যান্ডমাস্টার রবার্ট ব্রাইন নিউ ইয়র্ক টাইমসকে বলেন, এটা শুনতে খুব সাধারণ শোনাতে পারে, কিন্তু খুব কম খেলোয়াড়ই তার মত দাবাকে ভালবাসত। অনেকের কাছেই খেলাটা একটা পরিশ্রমের মত, যেখানে তাল আসলে উপভোগ করতেন।

মগজের লড়াই: শতরঞ্জ

চৌষট্টি খোপে লড়াই, ঘোড়া ছুটছে আড়াই চালে, নৌকা তরতরিয়ে এগোচ্ছে, হাতি বেজায় ছুটছে, চলছে বিপক্ষের রাজাকে কিস্তিমাত করার প্রয়াস! চোখ বন্ধ করে কল্পনা করলে মনে হতেই পারে আমি কোনো রণক্ষেত্রের সার্বিক পরিস্থিতি বলছি। হ্যাঁ, রণক্ষেত্র বটে, তবে এই রণক্ষেত্রে বাহুবলে সামনা-সামনি লড়াই হয়না, আসল লড়াইটা হয় মস্তিষ্ক বনাম মস্তিষ্কে! বলছি দাবা খেলার কথা।

tal-feature-image

সেরার সেরা দাবাড়ুগণ ২: মিখাইল তাল, দ্য ম্যাজিশিয়ান ফ্রম রিগা ২য় পর্ব

মিখাইল তাল ছিলেন বিংশ শতাব্দীর তুখোড় দাবাড়ুগণের মধ্যে অন্যতম । তাঁর জীবনের সামগ্রিক পর্যালোচনা এই ধারাবাহিক এর মুল প্রতিপাদ্য বিষয় ।

tal-feature-image

সেরার সেরা দাবাড়ুগণ ১: মিখাইল তাল, দ্য ম্যাজিশিয়ান ১ম পর্ব

দাবার ইতিহাসে সবথেকে কম সময় বিশ্বচ্যাম্পিয়নের মুকুট ধরে রেখেছিলেন (মাত্র এক বছর পাঁচ দিন)২ তাল, কিন্তু সবথেকে উজ্জ্বল তারকাদের মধ্যে তিনি অন্যতম। তাঁর খেলার ধরন পুরো দাবাবিশ্বকেই কাঁপিয়ে দিয়েছিল! প্রথাগত বতভিনিকের বিরুদ্ধে ১৯৬০ সালের বিশ্বচ্যাম্পিয়নশিপ ম্যাচে তরুণ তালের স্যাক্রিফাইসিং-রোমান্টিক-অ্যাটাকিং পারফরম্যান্স দাবাবোদ্ধাদের স্মৃতিতে চির অম্লান। তাঁর আক্রমণাত্মক খেলার শৈলী বিংশ শতকের শেষ ভাগের দাবার পরিমণ্ডলে এক আলোড়ন তৈরি করেছিল। দাবার বিকাশে এবং চিন্তাধারা গঠনে তাঁর অবদান প্রভূত।

অ্যাশেজ: ছাইভস্ম থেকে অভিজাত টেস্ট সিরিজ হয়ে ওঠার গল্প

অ্যাশেজ বিশ্ব ক্রিকেট ইতিহাসের অন্যতম প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ সিরিজ। প্রায় দেড়শত বছর ধরে চলে আসা এই সিরিজ আজ সম্মানের বিষয়বস্তু হয়ে দাঁড়িয়েছে।

pele

পেলে: ফুটবল ইতিহাসে কালজয়ী এক সম্রাটের ইতিকথা (শেষ পর্ব)

মাত্র ১৭ বছর বয়সে ফুটবল বিশ্বকাপে খেলার সুযোগ হয়ে যায় পেলের। গ্রুপ পর্বে অস্ট্রিয়া এবং সোভিয়েত ইউনিয়নকে হারিয়ে কোয়ার্টারে উঠে পেলের ব্রাজিল। কোয়ার্টারে ওয়েলসকে ২-০ ব্যাবধানে হারিয়ে সেমিতে পৌঁছতে সক্ষম হয় ব্রাজিল। সেই ম্যাচে এক গোল করে ফুটবল ইতিহাসে রেকর্ডের খাতায় নাম লেখায় “কালো মানিক” খ্যাত এই পেলে।

পেলে: ফুটবল ইতিহাসে কালজয়ী এক সম্রাটের ইতিকথা (উত্থান পর্ব)

পেলে বিশ্ব ফুটবল ইতিহাসের একজন কিংবদন্তি। কেবল ব্রাজিল নয়, বিশ্ব ফুটবল তাঁর শৈল্পিকতা এবং নান্দনিকতায় মুগ্ধ।

messi-ronaldo

মেসি নাকি রোনালদো, শ্রেষ্ঠত্বের প্রতিযোগিতায় কে এগিয়ে?

মেসি নাকি রোনালদো এই বিতর্কে আজ ফুটবল দুনিয়া দুই শিবিরে বিভক্ত। ক্লাব, জাতীয় দল, লিগ সবমিলিয়ে কে সেরা, তার তথ্যবহুল বিশ্লেষণ জানতে নিবন্ধটি পড়ুন।

মেসি

মেসি: ক্লাব বার্সেলোনার ইতিহাসে অনন্য এক নিউক্লিয়াস

কেউ বলেন বিশ্বসেরা, কেউবা আবার বলেন সর্বকালের সেরা, কারো আবার অভিমত সর্বকালের সেরাদের সেরা। বলছি লিওনেল মেসির কথা।

কাব্যিক ভাষায় যাকে বলা হয় ভিনগ্রহের ফুটবলার। যার নিপুণ পায়ের সুনিপুণ খেলা সকল ফুটবলপ্রেমিকে মাতোয়ারা করে দেয়। মনে হয় যেন কোনো সুদক্ষ শিল্পী তার সুনিপুণ দক্ষতা দিয়ে তার মনের কল্পনাকে বাস্তবে রুপান্তর করছেন।

error: Content is protected !!